বৃহস্পতিবার, ৮ই আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২৩শে সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

প্রবাসীদের সমস্যা নিরসনে দূতাবাসগুলোতে প্রফেশনালস নিয়োগ দিচ্ছে বাংলাদেশ

প্রবাস ডেস্ক, সুনামগঞ্জ২৪.কম::

প্রবাসীদের সমস্যা দ্রুত নিরসনের জন্য দূতাবাসগুলোতে প্রফেশনালস নিয়োগ দেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন বাংলাদেশের পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম।

মঙ্গলবার (৩০ মার্চ) ঢাকার অভিজাত হোটেল সোনারগাঁওয়ে প্রবাসী অ্যাপ উদ্বোধন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে প্রতিমন্ত্রী এ তথ্য জানান।

শাহরিয়ার আলম তার বক্তব্যে বলেন, ‘দেশের অর্থনৈতিক উন্নয়নে প্রবাসীদের ভূমিকা অনেক। কিন্তু প্রবাসীদের অনেক সমস্যা এখনো আমরা নিরসন করতে পারিনি। আমি বিদেশে গেলে যখনই সময় পাই প্রবাসীদের সমস্যাগুলো জানার চেষ্টা করি। প্রবাসীদের প্রধান সমস্যা দূতাবাসগুলোতে তারা দ্রুত সেবা পান না।’

‘হয়তো কারোর পাসপোর্টের বই শেষ হয়ে গেছে, হয়তো পাসপোর্টে ওয়ার্ক পারমিট সিল দিতে হবে- এসব কাজগুলো করতে এসে তারা ভোগান্তিতে পড়েন। অনেকে দালালের মাধ্যমে ৫০ থেকে ১০০ রিয়াল দিয়ে এসব কাজও করান। আমরা দূতাবাসগুলোতে প্রফেশনালস ও দক্ষ জনবল নিয়োগ দেবো। যাতে প্রবাসীরা তাদের সেবা দ্রুত পেতে পারেন। প্রথমে সৌদিসহ প্রবাসী ভাই-বোন যে দেশে বেশি থাকে সেসব দেশে নজর দেবো। ’

বিদেশে বাংলাদেশি ডাক্তার-নার্সদের চাহিদা বাড়ছে জানিয়ে প্রতিমন্ত্রী বলেন, ইউরোপ ও সৌদি আরবে বাংলাদেশি ডাক্তার-নার্সদের চাহিদা অনেক। আমরা এসব দেশে স্বাস্থ্যসেবা কর্মী পাঠাতে পারি। প্রতিনিয়তই বিদেশ থেকে আমরা চাহিদা পাচ্ছি। আমার বিশ্বাস প্রবাসী কল্যাণ মন্ত্রণালয় এ বিষয়ে উদ্যোগ নেবে। প্রবাসী কল্যাণ মন্ত্রণালয়কে সহায়তা করতে আমরা সদা প্রস্তুত।’

‘বর্তমান সরকারের আমলে অনেক মেডিক্যাল কলেজ, নার্সিং কলেজ ও নার্সিং ইনস্টিটিউট তৈরি হয়েছে। ফলে এসব প্রতিষ্ঠান থেকে প্রচুর স্বাস্থ্যকর্মী বের হবে। দেশীয় চাহিদা মিটিয়ে আমরা বিদেশে স্বাস্থ্যসেবা কর্মী পাঠাতে পারি। ’

প্রবাস জীবনে সফল ও সফলতা প্রত্যাশী বাংলাদেশিদের কার্যকর যোগসূত্র তৈরির একটি অন্যতম মাধ্যম ‘প্রবাসী অ্যাপ’। অনলাইন যোগাযোগভিত্তিক এই অভিনব প্ল্যাটফর্ম প্রবাস জীবনের প্রয়োজনীয় তথ্য, দক্ষতা ও বিদ্যমান সুযোগ আদান-প্রদানে বলিষ্ঠ ভূমিকা রাখবে। এই অ্যাপ দূতাবাসগুলোর মাধ্যমে সব দেশে ছড়িয়ে দেওয়া হবে।

প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের সচিব ড. আহমেদ মুনিরুছ সালেহীন বলেন, ১৭০টি দেশে ১ কোটি ২০ লাখ প্রবাসী ভাই-বোন রয়েছেন। দেশে যদি ২০ লাখ মানুষের কর্মসংস্থান হয় তবে ২৫ শতাংশ অবদান রাখে বৈদেশিক কর্মসংস্থান। এই খাতের উন্নয়নে সবাইকে এগিয়ে আসতে হবে। বৈদেশিক কর্মসংস্থানে সুখের খবর আছে, অন্যদিকে দুঃখের খবরও আছে। তবে দুঃখের খবর বড় করে ছাপা হয়। তাই আমি বলবো আপানারা সোনার হরিণের পেছনে ছুটবেন না। দেখে-বুঝেই বিদেশে পাড়ি জমান।

এসময় আরও বক্তব্য রাখেন পানিসম্পদ মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব কবির বিন আনোয়ার, হাইটেক পার্ক কর্তৃপক্ষের ব্যবস্থাপনা পরিচালক (সচিব) হোসনে আরা বেগম প্রমুখ। প্রবাসী অ্যাপের প্রতিষ্ঠাতা কানিজ ফাতিমা এর আগে স্বাগত বক্তব্য রাখেন।

সুনামগঞ্জ২৪.কম/ বানি/ এমএআই

error: Content is protected !!